রাসূলুল্লাহ (ﷺ) হায়াতুন্নবী | ইসলামী বিশ্বকোষ ও আল-হাদিস

রাসূলুল্লাহ (ﷺ) হায়াতুন্নবী 

🕋 ইমাম হাসান (رضي الله عنه) বর্ণনা করছেন, নবী-পাক (ﷺ) বলেছেন, "তােমরা আমার কবরে আমার চাদরখানি বিছিয়ে দিও। নিশ্চয় মাটি নবীগণের শরীরে প্রভাব ফেলতে পারে না।"


১. ইবনু সাআদ, আত তাবাকাতুল কুবরা। ২: ২৯৯। 

২. হিন্দী, কানযুল ওম্মাল। ১৫: ৫৭৭। হাদিস নম্বর: ৪২২৪৫। 

৩. সুয়ূতী, শরহুন আলা সুনানিন নাসাঈ । ৪: ৮৪। 

৪. সুয়ূতী, আল খাসায়িসুল কুবরা। ২: ২৭৮। 

৫. সুন্দী, হাশিয়াতুন আলা সুনানিন নাসাঈ । ৪: ৮২, ৮৪। 


🕋 ইমাম হাসান (رضي الله عنه) বর্ণনা করছেন, নবী-পাক (ﷺ) এরশাদ করেন, 

যার সাথে রূহুল-কুদস (জিবরাঈল আলাইহিস্ সালাম) কথা বলেছেন, তাঁর দেহকে মাটিতে ভক্ষণ করতে পারবে না। 


১. ইবনু ইসহাক এজদী, ফদ্বল্‌স সালাতি আলান নবিয়্যি (ﷺ) ৩৯। হাদিস নম্বর: ২৩। 

২. ইবনু কাইয়িম, জালাউল আহাম। ৪১। হাদিস নম্বর: ৫৯। 

৩. ইবনু কছীর, তাফসীরুল কুরআন। ৩; ৫১৪। 

৪. সাখাবী, আল কওলুল বদী ফিস সালাতি আলাল হাবীবিশ শফী সাল্লাল্লাহু তাআলা আলাইহি ওয়া 

সাল্লাম ১৬৯।


🕋 ইমাম হাসান (رضي الله عنه) বর্ণনা করছেন, নবী-পাক (ﷺ) এরশাদ করছেন, 

"রূহুল-কুদস (জিবরাঈল আলাইহিস সালাম) যার সাথে কথা বলেছেন, তার দেহের মাংস ভক্ষণ করার জন্য মাটিকে কখনাে অনুমতি দেওয়া হবে না।" 


১.মুকরীযী, ইমতাউল আসমা। ১০: ৩০৬। 

২. সুয়ূতী, আল খাসায়িসুল কুবরা। ২: ২৮০। 

৩. সুয়ূতী, আদ দুররুল মনছুর ফিত তাফসীরি বিল মাছুর। ১: ৮৭।


🕋 আবুল আলীয়া (رحمة الله) বলছেন, 

"নবীগণের দেহ মােবরককে মাটিও খেতে পারে না, হিংস্র জন্তুরাও খেতে পারে না।"

(সুয়ূতী আল খাসায়িসুল কুবরায় (২: ২৮০) লিখেছেন, ইবনু বুকার ‘আখবারুল মদীনা' কিতাবে এই উক্তটি ব্যক্ত করেছেন।) 


🕋 আল্লামা তকিউদ্দীন সুবকী (رحمة الله) এই রেওয়াতগুলাে সম্পর্কে বলেছেন, (দুরুদ পেশ সংক্রান্ত) হাদিসটি দ্বারা বুঝা যায়, হুজুর-পাক (ﷺ) এর রূহ মােবারক তারই দেহ মােবারকে ফিরিয়ে দেওয়া হয় আর নিঃসন্দেহে তিনি উম্মতিদের সালামও শােনেন এবং জবাবও দেন। 

(সুবকী, শিফাউস সিকাম ফি যিয়ারাতি খাইরিল আনাম। ১৩৩) 


🕋 হযরত ইবরাহীম বিন শায়বান (رحمة الله) বলছেন, হজ্ব শেষ করে আমি মদীনা-শরীফ চলে এলাম। রওজায়ে আতহারের নিকটে গিয়ে সালাম আরজ করলাম। সাথে সাথে হুজরা শরীফের ভেতর থেকে শুনতে পেলাম- (তােমার উপরও শাস্তি হােক)। 

১. সাখাবী, আল কওসুল বদী ফিস সালাতি আলাল হাবীবিশ শফী । ১৬০। 

২. মুকরিযী, ইমতাউল আসমা । ১৪: ৬১৬। 

৩. সুবকী শিফাউস সিকাম ফি যিয়ারাতি খাইরিল আনাম (পৃ: ৩৮) কিতাবে উক্তিটি ইবরাহীম বিন বিশারের বলে উল্লেখ করেছেন। 


🕋 সােলায়মান বিন তামীম বলছেন, নবী-পাক (ﷺ) কে আমি স্বপ্নে দেখি। আমি তাঁকে আরজ করলাম, ইয়া রাসূলাল্লাহ্(ﷺ)! এরা সবাই তাে আপনার দরবারে এসে আপনাকে সালাম জানায়। আপনি কি তাদের সালামের কথা বুঝতে পারেন? হুজুর-পাক (ﷺ) বললেন, হাঁ, (বুঝতে পারি) এবং আমি (তাদের সালামের) জাবাবও দিয়ে থাকি।  

১. বায়হাকী, শুআবুল ঈমান। ৩: ৪৯১। হাদিস নম্বর: ৪১৬৫। 

২. সুবকী, শিফাউস সিকাম ফি যিয়ারতি আইরিল আনাম । ৩৮। 

৩. মুকরীযী, ইমতাউল আসমা। ১০: ৩০৮। 

৪. সাখাবী, আল কওলুল বদী ফিস সালাতি আলাল হাবীবিশ শফী। ১৬০।