গোসলের অযুই যথেষ্ট, থুথুর মধ্যে রক্ত

গোসলের অযুই যথেষ্ট

===========

গোসলের জন্য যে অযু করা হয়, সেটাই যথেষ্ট, যদিও উলঙ্গাবস্থায় গোসল করে থাকে। গোসলের পর দ্বিতীয়বার অযু করা জরুরী নয়। যদি গোসলের পূর্বে অযু নাও করা হয়, তবুও গোসলের মাধ্যমে অযুর অঙ্গসমূহে পানি প্রবাহিত হওয়ার কারণে অযু হয়ে যায়, নতুনভাবে অযু করার দরকার নেই। কাপড় পাল্টানোর কারণে অযু ভঙ্গ হয় না। 


থুথুর মধ্যে রক্ত

========

 (১) মুখ থেকে রক্ত বের হলো, থুথুর উপর যদি রক্তের প্রাধান্য থাকে, তবে অযু ভঙ্গ হয়ে যাবে। অন্যথায় ভঙ্গ হবে না। রক্তের প্রাধান্য বুঝার পদ্ধতি হচ্ছে;যদি থুথুর রং লাল হয়, তাহলে বুঝতে হবে এতে রক্তের প্রাধান্য আছে, তাই অযু ভঙ্গ হয়ে যাবে এবং এ লাল (থুথু) নাপাকও। যদি থুথুর রং হলুদ হয়, তবে বুঝতে হবে এতে রক্তের উপর থুথুর প্রাধান্য আছে। অতএব অযু ভঙ্গ হবে না, আর এ হলুদ বর্ণের থুথু নাপাকও নয়। (বাহারে শরীয়াত ১ম খন্ড ৩০৫ পৃষ্ঠা) (২) মুখ থেকে এত বেশি পরিমাণ রক্ত বের হলো যে, থুথু লাল হয়ে গেলো, এমতাবস্থায় কুলি করার জন্য লোটা (বদনা) অথবা গ্লাসে মুখ লাগিয়ে পানি নিলে লোটা (বদনা) , গ্লাস ও সবটুকু পানি নাপাক হয়ে যাবে। এ সময় অত্যন্ত সাবধানতার সাথে হাতের কোষে পানি নিয়ে কুলি করতে হবে। আর কুলির পানির ছিঁটা যেন কাপড় ইত্যাদিতে না পড়ে সে ব্যাপারেও সতর্ক থাকতে হবে।

Previous Next

نموذج الاتصال