বিষয়:"পুরুষ ডাক্তারের নিকট মহিলার চিকিৎসা করানো।" | ইসলামী বিশ্বকোষ ও আল-হাদিস

বিষয়:"পুরুষ ডাক্তারের নিকট মহিলার চিকিৎসা করানো।"
-[২১/০৭/২০১৯]

#প্রশ্ন:
পুরুষ ডাক্তার মহিলা রোগীকে দেখতে ও স্পর্শ করতে পারবে কি না?

#উত্তর:
যদি মহিলা ডাক্তার পাওয়া না যায় তবে অপারগ অবস্থায় অনুমতি রয়েছে।

আল্লামা মুফতি আমজাদ আলী আজমি র. বলেনঃ" পর-নারীর দিকে দেখার প্রয়োজনীয় একটি অবস্থার মধ্যে এটাও রয়েছে যে,যদি মহিলা অসুস্থ হয়,তার চিকিৎসার জন্য কতিপয় অঙ্গের দিকে দেখার প্রয়োজন হয় বরং তাকে স্পর্শ ও করতে হয়।যেমনঃনাড়ী পরিক্ষা করার জন্য হাত স্পর্শ করতে হয়,পেট ফুলে গেলে চাপ দিয়ে দেখতে হয় ইত্যাদি।এমতাবস্থায় রোগাক্রান্ত স্থানের দিকে দৃষ্টিপাত করা এমনকি ওই স্থানে স্পর্শ করাও জায়েজ।এটা তখনই হবে যখন মহিলা ডাক্তার পাওয়া না যায়।

তবে এমনটা উচিত নয় যে মহিলাদের চিকিৎসা শিখানো যেন এমন অবস্থায় তারা চিকিৎসা করতে পারে।কেননা তার দেখার দ্বারা এতটা ক্ষতি হবে না,যা পুরুষের দেখার দ্বারা হবে।চিকিৎসার সময় ও সাবধানতা অবলম্বন করা আবশ্যক। শুধু যতটুকু অঙ্গ দেখার প্রয়োজন ততটুকুই খুলবে।অবশিষ্ট অঙ্গগুলো ভালোভাবে ঢেকে নিবেন যেন সেখানে দৃষ্টি না পরে।"
👉(বাহারে শরিয়ত,১৬ তম খন্ড,৯০-৯১ পৃষ্ঠা)

নোটঃমনে রাখবেন,যদি দেখার দ্বারা সমাধান হয়ে যায় তবে স্পর্শ করবে না।কারণ স্পর্শ করা দেখার চেয়েও কঠিনতর বিষয়।

✅স্বাধীন আহমদ রেজভী